বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ‘ধর্ষণ’, আইনি ঝামেলায় কঙ্গনার বডিগার্ড

বিনোদন

র‌্যাডিকাল নিউজ ২৪ ডেস্ক: এবার বিতর্কে জড়ালেন আলোচিত ও সমালোচিত বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াতের বডিগার্ড (ব্যক্তিগত দেহরক্ষী)। আন্ধেরির এক বিউটিশিয়ান কুমার হেগড়ে নামের ওই দেহরক্ষীর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ করেছেন। ওই নারী তার বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগের পাশাপাশি প্রতারণা এবং বিকৃত যৌনাচারের কথাও।

ভিকটিমের ভাষ্য, প্রায় আট বছর ধরে কঙ্গনার বডিগার্ড কুমার হেগড়েকে চেনেন তিনি। গত বছর জুন মাসে কুমার ওই নারীকে বিয়ের প্রস্তাব দেন। অভিযোগ, বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে একাধিকবার তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কও তৈরি হয় কুমারের। গত ২৭ এপ্রিল নির্যাতিতার কাছ থেকে পঞ্চাশ হাজার টাকাও নেন তিনি। তারপর আর ওই মহিলার সঙ্গে কোনও যোগাযোগ রাখেননি কুমার।

এ ঘটনায় গত ১৯ মে কুমারের বিরুদ্ধে ডিএন নগর থানায় এফআইআর দায়ের করে মুম্বাই পুলিশ ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৭৬ এবং ৩৭৭ ধারায় মামলা রুজু করেছে। প্রতারণার অভিযোগে ৪২০ ধারাতেও অভিযোগ দায়ের হয়েছে। তবে এখনও গ্রেপ্তার হয়নি কুমার হেগড়ে।

উল্লেখ্য, ব্যক্তিগত দেহরক্ষী হওয়ায় একাধিকবার কুমার হেগড়ের সঙ্গে দেখা গেছে কঙ্গনা রানাওয়াতকে। এমনকী কুমারের জন্মদিন উদযাপন করতেও দেখা গেছে অভিনেত্রীকে। তবে ব্যক্তিগত দেহরক্ষীর বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ নিয়ে এখনো মুখ খোলেননি কঙ্গনা। সূত্র : সংবাদ প্রতিদিন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *